বুধবার, ২৪ জুলাই, ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ |৯ শ্রাবণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
মহিলার স্বজনদের সন্ধান চায় পুলিশ  » «   কোম্পানীগঞ্জে ইয়াবা সহ আটক ১  » «   কোম্পানীগঞ্জে ইয়াবা সহ আটক ১  » «   কোম্পানীগঞ্জে উপজেলা প্রশাসনের ত্রাণ বিতরণ  » «   কোম্পানীগঞ্জ থানা পুলিশের অভিযানে ৫৮ অফিসার চয়েস সহ আটক ১  » «   দেশবাসী ও মুসলিম উম্মাহকে ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মুফতি ইমাম উদ্দিন  » «   একাত্তরের কথা’র অনলাইনভার্সন যাত্রা করছে আজ  » «   কোম্পানীগঞ্জ প্রবাসী উন্নয়ন পরিষদ ইতালি শাখার কমিটি গঠন  » «   কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী হাজী আমিনুল হকের গনসংযোগ  » «   কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ভাইস চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী সাংবাদিক আবিদুর রহমান  » «   সিলেট ৪ আসনে ইমরান আহমদের পক্ষে বিরামহীন প্রচারণায় ছাত্রনেতা সজিবুল ইসলাম  » «   মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক, কোম্পানীগঞ্জের বিশিষ্ট মুরব্বি কালা চাঁন মিয়ার ইন্তেকাল, বিভিন্ন মহলের শোক  » «   রাজনগর নতুন বাজার ফ্রেন্ডস স্টাফের দিনব্যাপী তাফসীরুল কোরআন মাহফিল  » «   কোটা বহালের দাবিতে কোম্পানীগঞ্জে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ  » «   কোম্পানীগঞ্জ প্রেসক্লাবে জমিয়ত মনোনীত প্রার্থীর মতবিনিময়  » «  

ফেসবুককে চিঠি পাঠাবে সরকার

companigonjerdak_13নিউজ ডেস্ক : বাংলাদেশের সাইবার নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ফেসবুকের সাথে একটি চুক্তি করার জন্য আগামীকাল সরকারের পক্ষ থেকে ফেসবুক কর্তৃপক্ষকে একটি চিঠি পাঠানো হবে বলে জানিয়েছেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম। এর মাধ্যমে এদেশের ফেসবুক ব্যবহারকারীদের সম্পর্কে তথ্য জানতে পারবে সরকার।

বাংলাদেশের ইংরেজি সংবাদপত্র ‘ডেইলি স্টার’ সেন্টারে সংবাদকর্মীদের কাছে সরকারের এই পরিকল্পনার বিষয়টি উল্লেখ করে তারানা বলেন, পরিকল্পনা অনুযায়ী ফেসবুকের সাথে চুক্তি করার জন্য আমি চিঠিটি লিখবো।

সাইবার আক্রমণে বিশেষত ফেসবুকের মাধ্যমে এই অপতৎপরতায় দেশ অরক্ষিত হয়ে যাওয়ায় সরকারের পক্ষ থেকে এই উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে বলে মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা যায়। চলতি মাসের ১৭ তারিখে বর্তমান সরকার ফেসবুক কর্তৃপক্ষের সাথে একটি চুক্তি স্বাক্ষর করার পরিকল্পনা করছে বলে সংবাদকর্মীদের জানিয়েছিলেন তারানা।

ব্যবহারকারীদের পোস্টের দায়ভার নেটওয়ার্কিং সাইটটি বহন করবে না শর্তে ২০০৬ সালে বাংলাদেশ সরকারের সাথে এমন একটি চুক্তি করার ব্যাপারে আগ্রহ দেখিয়েছিলো ফেসবুক।

চলতি মাসে প্রকাশিত ফেসবুকের গ্লোবাল গভর্নমেন্ট রিকোয়েস্ট রিপোর্ট অনুযায়ী, এ বছরের শুরু থেকে জুন মাস পর্যন্ত ছয় মাসে ব্যবহারকারীদের ব্যাপারে তথ্য জানতে চেয়ে বাংলাদেশ সরকারের করা সকল আবেদন ফেসবুক প্রত্যাখান করেছে।

২০১৩ সাল থেকে অর্ধবার্ষিক রিপোর্ট প্রকাশ শুরুর পর থেকে বাংলাদেশ সরকারের কাছে কোনো তথ্য সরবরাহ করেনি ফেসবুক। এই সময়ে ৩৭ জন ব্যবহারকারি সম্পর্কে তথ্য জানতে চেয়ে ১৬ বার অনুরোধ জানিয়েছিলো সরকার।

বাংলাদেশের ব্যবহারকারীদের জন্য কতগুলো কন্টেন্টে প্রবেশ সীমাবদ্ধতা রয়েছে বা সরকারের আবেদনের প্রেক্ষিতে ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে সে ব্যাপারে কোনো তথ্য জানায়নি ফেসবুক। কিন্তু সামাজিক যোগাযোগের এই বিশাল মাধ্যম তাদের প্রতিবেদনে জানিয়েছে বৈশ্বিকভাবে ২০ হাজার ৫৬৮ টি পোস্ট এবং স্থানীয় আইন ভঙ্গকারী অন্যান্য কিছু কন্টেন্ট এ বছরের প্রথম অর্ধে সরিয়ে ফেলা হয়েছে।

আপনার মতামত প্রদান করুন

টি মন্তব্য